kidarkar

এফডিসির গেটে আমার ওড়না রেখে দিয়েছিলো

বিনোদন

হাসান রাফি | ১৯ ডিসেম্বর ২০২০, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ১২:৩৫ অপরাহ্ন

‘এফডিসির গেট দিয়ে ভেতরে ঢুকতে গেলে সিকিউরিটি গার্ড আমাকে আটকায়। পরিচয় দেওয়ার পরও যেতে দেবে না বলে জানায়। কিন্তু আমি হাঁটা শুরু করি। তখন আমাকে ধরতে গিয়ে ওড়না ধরে ফেলে। আমি চলে আসি কিন্তু ওড়না গার্ডের হাতে রয়ে যায়। ওভাবেই শুটিং সেটে গিয়ে নালিশ করি।

এর পরে লঙ্কা কাণ্ড ঘটে!’—ক্যারিয়ারের শুরুর দিকের ঘটনা বর্ণনা করতে গিয়ে এসব কথা বলেন আশির দশকের দাপুটে অভিনেত্রী রিনা খান। তারপর সেদিন বিএফডিসিতে কী ঘটেছিল? এ প্রশ্নের জবাবে রিনা খান বলেন, সেদিন শুটিং সেটে ছিলেন জসিম ভাই। বিষয়টি সেটে নালিশ করার পর জসিম ভাই তো রেগে আগুন!

সঙ্গে সঙ্গে গেটে এসে মারধর শুরু করেন। বিশাল হট্টগোল বেঁধে যায়। তারপর এফডিসিতে ১৩ দিন শুটিং বন্ধ ছিল। ছোটবেলায় স্কুল পালিয়ে অনেক সিনেমা দেখেছেন রিনা খান। স্সেব স্মরণ করে এ অভিনেত্রী বলেন, ছোটবেলায় স্কুল পালিয়ে অনেক সিনেমা দেখেছি।

একবার মায়ের কাছে একজন নালিশ করেছিলেন। বাসায় ফেরার পর মা আমাকে হাতপাখা দিয়ে মেরেছিলেন। মারতে মারতে পাখা ভেঙে ফেলেছিলেন। পরে এক সাক্ষাৎকারে অভিনয় করার ইচ্ছা প্রকাশ করি। আর এটা সুভাষ দত্ত দাদা দেখেছিলেন। তারপরই দাদা আমাকে ডেকে পাঠান।

‘সোহাগ মিলন’ সিনেমায় প্রথম অভিনয় করেন রিনা খান। এটি মুক্তি পায় ১৯৮১ সালে। এতে পাহাড়ি এক মেয়ের ভূমিকায় অভিনয় করেন তিনি। তখন আরো কয়েকটি সিনেমায় সহকারী পরিচালক হিসেবেও কাজ করেন রিনা খান। রিনা খান নেতিবাচক চরিত্রে অভিনয়ের জন্য অধিক জনপ্রিয়।

কীভাবে নেতিবাচক চরিত্রের শুরু হলো? এ বিষয়ে তিনি বলেন, ‘শাবানা আপার সঙ্গে অনেক কাজ করেছি। সুভাস দত্তের ‘সবুজ সাথী’ সিনেমায় শাবানা আপার সৎ বোন ছিলাম। শুটিংয়ে আমাকে বলা হয়েছিল, তুই শাবানাকে থাপ্পড় মারবি।

কিন্তু আমি থাপ্পড় মারবো শাবানা আপাকে! আমি বলি, পারবো না। শাবানা আপা বললেন, আরে এটাতো কাজ, মার না! আমি বললাম, না আপা আমি পারবো না, আপনার পায়ে ধরি। যাইহোক, শুটিংতো করতে হবে।

পরে শাবানাকে আপাকে থাপ্পড় মারি। ওই এক থাপ্পড় দেওয়ার পর থেকে এখনো নেগেটিভ চরিত্রে অভিনয় করছি। কারণ সেই সিনেমা হিট হয়েছিল। তারপর থেকে এখনো সবাই আমাকে নেগেটিভ চরিত্রের জন্যই ডাকে।’

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  • *
  • এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আরও খবর

    kidarkar