kidarkar

মাইক বন্ধ না করায় শিব ঠাকুর ও মা কালীর প্রতিমা ভা’ঙচুর করল বখাটে সুজন

অদ্ভুত খবর

হাসান রাফি | ০২ নভেম্বর ২০১৯, শনিবার | সর্বশেষ আপডেট: ০৬:৩৫ অপরাহ্ন

যশোরের অভয়নগরে মাইক বন্ধ না করায় শিব ঠাকুর ও মা কালীর প্রতিমা ভা’ঙচুর করেছে সুজন (৩৫) নামের এক বখাটে। পুলিশ বখাটেকে আ’টক করেছে। শুক্রবার দুপুরে উপজেলার চলিশিয়া ইউনিয়নের আন্ধা গ্রামের ছোট আন্ধা কালীতলা মন্দিরে এ ভা’ঙচুর ঘটনা ঘটে। আ’টক সুজন একই ইউনিয়নের চলিশিয়া গ্রামের গফুর মোল্যার ছেলে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, শুক্রবার আনুমানিক বেলা ১২টার সময় সুজন নামের এক বখাটে যুবক উক্ত মন্দির চত্বরের পূজা মণ্ডপে আসেন এবং মাইকে চলা গান বন্ধ করতে বলেন। মাইক অপারেটর গান বন্ধ না করলে তিনি একটি বাঁশের লাঠি দিয়ে প্রথমে মাইক এবং পরে শিব ঠাকুর ও মা কালীর প্রতিমা ভা’ঙচুর করেন। এলাকাবাসী এগিয়ে আসলে তিনি দৌঁড়ে পালিয়ে যান। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন।

মন্দির কমিটির নেতা রনজিৎ বলেন, শুক্রবার রাতে প্রতিমা দুইটি বিসর্জন দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু তার আগেই ভা’ঙচুরের ঘটনা ঘটে। ভা’ঙচুরের খবর পেয়ে যশোর জেলা পুলিশের ‘খ’ সার্কেলের এএসপি জামাল আল নাসের ও অভয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাজুল ইসলামসহ সঙ্গীয় ফোর্স ঘটনাস্থলে আসেন।

এ সময় গ্রামবাসী ভা’ঙচুরকারী বখাটে সুজনকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি করলে ওসি তাজুল ইসলাম চলিশিয়া গ্রামের মোল্যাপাড়া থেকে তাকে আ’টক করে মন্দির চত্বরে নিয়ে আসেন। উপস্থিত সকলের সামনে পূজা মণ্ডপের মাইক ও দুইটি প্রতিমা ভা’ঙচুরের কথা স্বীকার করে সুজন বলেন, জুম্মার নামাজের কারণে মাইক বন্ধ করতে গিয়েছিলাম। খারাপ আচরণ করায় মাইক ভা’ঙচুর করি। তবে প্রতিমা দুইটি ভা’ঙচুর করিনি ধাক্কা মেরে ফেলে দিয়েছিলাম।

এ ব্যাপারে অভয়নগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তাজুল ইসলাম জানান, খবর পাওয়া মাত্র ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। প্রত্যক্ষদর্শী ও মন্দির কমিটির অভিযোগের ভিত্তিতে ভা’ঙচুরের সঙ্গে জড়িত সুজন নামের একজনকে আ’টক করা হয়েছে। মন্দির কমিটির পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পাওয়া মাত্র মামলা দায়ের করা হবে।

এএসপি জামাল আল নাসের বলেন, প্রতিমা ভা’ঙচুরের ঘটনা দুঃখজনক। আমি নিজে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। ঘটনার সঙ্গে জড়িত এক যুবককে আ’টক করা হয়েছে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে কেউ সাম্প্রদায়িক ফায়দা নেওয়ার চেষ্টা করলে তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে হুঁশিয়ারি প্রদান করেন।

আপনার মতামত দিন

Your email address will not be published. Required fields are marked *

  • *
  • এই বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    আরও খবর

    kidarkar